সুখী দাম্পত্যের ১০ উপায়

লাইফ স্টাইল May 8, 2017 865
সুখী দাম্পত্যের ১০ উপায়

সম্পর্ক সৃষ্টি করতে অথবা সঙ্গী হিসেবে আপনি যতই নিখুঁত হননা কেনো, সম্পর্ক প্রাণবন্ত রাখতে সবসময় সচেষ্ট থাকতে হয়।


সম্পর্কবিষয়ক একটি ওয়েবসাইটে প্রকাশিত প্রতিবেদনে জানানো হয় ১০ রকম অভ্যাস গড়ে তুললে দাম্পত্য সম্পর্ক উষ্ণ রাখা সম্ভব।


প্রতিদিন ‘ভালোবাসি’ কথাটা বলা: এই কাজটা খুব সহজ মনে হতে পারে। তবে অনেক সময় আসে যখন আপনি তা অনুভব করতে পারেন না। তারপরও যদি সঙ্গীকে দেখানোর চেষ্টা করেন যে, তাকে খুব ভালোবাসেন তাহলে এই চেষ্টাই সুখী দাম্পত্যজীবন গড়ে তুলতে সাহায্য করে।


জড়িয়ে ধরা: ভালোবাসার মানুষকে জড়িয়ে ধরার মধ্য দিয়ে অনেক সমস্যার পরিত্রাণ পাওয়া সম্ভব। তাই প্রতিদিনই ভালোবাসার মানুষকে অনেকক্ষণ শক্ত করে জড়িয়ে ধরুন।


পরস্পর মজা করা: একে অপরের সঙ্গে মজা করুন। খুনসুটি চলতেই পারে। সঙ্গীকে আঘাত না করে বরং হাসি ঠাট্টার মাধ্যমে সময়কে আরও বেশি আনন্দময় করে গড়ে তুলুন।


পরস্পরের প্রশংসা করা: সুখী দম্পতিরা জানেন প্রশংসার শক্তি কতখানি। তাই সংসার জীবনে একে অপরের প্রশংসা করুন। তাকে বুঝিয়ে দিন তিনি আপনার জীবনে কতখানি মূল্যবান।


ভবিষ্যতের পরিকল্পনা করা: সঙ্গীকে নিয়ে ভবিষ্যতের পরিকল্পনা করুন। হতে পারে সেটা একসঙ্গে পথ চলা, বিয়ে করার চিন্তা, সন্তান অথবা কোনো ছুটির দিন সম্পর্কিত পরিকল্পনা করা।


স্বতঃস্ফূর্ততা: ভবিষ্যতের পরিকল্পনাকে বিরক্তিতে পরিণত করবেন না। সুখী দম্পতিরা বর্তমান ও ভবিষ্যতের মাঝে সুন্দরভাবে ভারসাম্য রক্ষা করতে জানেন।


একে অপরের সঙ্গে স্বস্তি অনুভব করা: সুখী দম্পতিরা সবসময় সুখে দুঃখে পরস্পরের পাশে থাকেন। সঙ্গীকে সহায়তা করতে ও উৎসাহ দিতে প্রয়োজনীয় সমর্থন তারা করেন।


একে অপরের কথা শোনা: সঙ্গীর কথা বলার সময় বাধা না দিয়ে মনোযোগ দিয়ে কথা শোনা এবং পরে নিজের মতামত উপস্থাপন করা সুখী দাম্পত্যের জন্য প্রয়োজন।


মাঝে মধ্যে বাইরে ঘুরতে যাওয়া: যেসব দম্পতি মান সম্পন্ন সময় কাটানোর গুরুত্ব বোঝে তারা মাঝে মধ্যেই সময় বের করে বাইরে বেড়াতে যায়।


শেষ দিন পর্যন্ত একসঙ্গে থাকার ইচ্ছা: জীবনের শেষ দিন পর্যন্ত একসঙ্গে থাকার ইচ্ছা এবং একে অপরের মাঝে বন্ধুত্ব রক্ষা করার আগ্রহ সুখী দাম্পত্য তৈরিতে সহায়ক।