চুলে বসন্তের ফুল!

সাজগোজ টিপস February 14, 2017 6,396
চুলে বসন্তের ফুল!

আজ ফাল্গুনের দ্বিতীয় দিন। আবার আজই ভালোবাসা দিবস। বসন্তের এই সময়টা উৎসবের। প্রকৃতি আর নগরজীবন‍—দুটোই যেন মেতে ওঠে উৎসবের রঙে। প্রকৃতির রঙে রাঙিয়ে মন চায় নিজেকে সাজাতে। এ সময়টা চুলের সাজে ফুলের ব্যবহার করা যায় একটু ভিন্ন মাত্রায়। একটি বেসরকারি প্রতিষ্ঠানে চাকরি করেন তানজিনা বহ্নি। তিনি মনে করেন, বসন্তের সবচেয়ে সুন্দর সাজ হচ্ছে চুলে বসন্তের ফুল তুলে আনা। এতে পুরো সাজেই ভিন্নতা চলে আসে। রূপবিশেষজ্ঞ তানজিমা শারমিন মনে করেন, চুলের অন্য রকম সাজে এখন থাকতে পারে বসন্তের বিভিন্ন রঙের ফুলের ছোঁয়া। বেশ কয়েক বছর ধরে বসন্ত উৎসবে জনপ্রিয় হয়ে উঠেছে তাজা ফুলের গোলাকার ব্যান্ড। অনেকটা গ্রিক দেবতাদের মুকুটের মতো।




চুলের সাজের কয়েকটি বিষয় এবার জেনে নেওয়া যাক—


* চুল খোলা রাখলে, অর্থাৎ ছেড়ে দিলে সবচেয়ে বেশি ভালো লাগবে। তবে বাঁধলে যেন তা খুব আঁটসাঁট না হয়। একটু ঢিলেঢালা রাখাই ভালো।


* চুলে অগোছালো সাজ দিলেও তাতে থাকতে হবে ছন্দ। সামনের দিকে চুল মেসি করে পেছনে হালকা কোঁকড়া করে ছেড়ে দেওয়া যেতে পারে। সে ক্ষেত্রে চুলের পেছন দিকটায় ফুল গুঁজে নিতে পারেন।


* দুপাশে খেজুর বেণি করে দুই পাশেই ফুল গুঁজতে পারেন।


* এক পাশেও বেণি করতে পারেন। তখন ফুলের ব্যান্ড ব্যবহার করা যায়।


* খোলা চুলেও ভালো লাগবে ফুলের ব্যান্ড।


* চারদিকে ফুল না দিয়ে একটু ভিন্নভাবে গড়ে নিন ফুলের ব্যান্ড। ব্যান্ডের দুই পাশে অথবা যেকোনো এক পাশে ফুল গুঁজে আর বাকি অংশটা চেইন, রঙিন কাপড় অথবা ফিতা দিয়ে জড়িয়ে নিতে পারেন।


·* পুঁতি আর ফুল দিয়ে চেইনের মতো বানিয়ে মাথার এক পাশ থেকে শুরু করে পুরো বেণিতে বেঁধে নিতে পারেন।


·* ফুলের ব্যান্ডে ছোট ছোট ফুল ব্যবহার করলে বেশি ভালো লাগবে। বসন্তে ছোট আকৃতির চন্দ্রমল্লিকা, ক্যালেন্ডুলা আর গোলাপও পাবেন।


·* ফুটন্ত ফুল ছাড়াও ব্যবহার করতে পারেন ফুলের কলি কিংবা আধা ফোটা কলি।


* চুলে শুধু ফুলই নয়, এর সঙ্গে সবুজ বা শুকনো পাতাও ব্যবহার করতে পারেন। ফুলের ব্যান্ডে পাতার ব্যবহার ভিন্নতা এনে দেবে।


চুলে তাজা ফুলের ব্যবহার তো আপনাকে রঙিন করেই। তবে তারও আগে বাছাই করে নিতে হবে বসন্তের পোশাকটা।


তানজিমা শারমিন বললেন পোশাকের সঙ্গে মিলিয়ে ফুল ব্যবহার করতে। যেমন পোশাকে হলুদ গোলাপের নকশা থাকলে চুলে গুঁজতে পারেন ছোট ছোট হলুদ গোলাপ। যেহেতু বসন্তের পোশাক আর সাজে রঙের একটা প্রভাব থাকে, তাই নখেও ফুল আর পোশাকে থাকা রঙের ছোঁয়া দেওয়া ভালো।


ম্যাট অথবা গ্লসি একরঙা নেইল পলিশ ব্যবহার করতে পারেন। চুল যে রঙের ফুলের আধিক্যে সাজাবেন, সেই রঙের নেইল পলিশ ভালো লাগবে। এ ছাড়া পোশাকের প্রধান রঙের সঙ্গে মিলিয়েও নেইল পলিশ ব্যবহার করা যাবে। তবে ফুলের রঙের মিল আনবে ভিন্নতা।